হেলিকপ্টার থেকে গুলি করে ৫ হাজার উট হত্যা! চীন এখন আর কারেন্সি ম্যানুপুলেটর নয়, জাতিসংঘে কাশ্মীর ইস্যু তুলল চীন-ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ভারতের!

0
82

হেলিকপ্টার থেকে গুলি করে পাচঁদিনে পাচঁ হাজার উট হত্যা করেছে অস্ট্রেলিয়া সরকার। ভয়াবহ দাবানলের মধ্যে প্রচন্ড গরম ও খরার কারণে চলতি মাসেই দেশের দক্ষিণান্চল এ থাকা ১০ হাজার উটকে গুলি করে হত্যার সিদ্ধান্ত নিয়েছিল দেশটির র্কতৃপক্ষ। মঙ্গলবার কেনিয়া ভিত্তিক সংবাদ মাধ্যম ডেইলি নেশনের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা গেছে তাতে বলা হয়েছে, দক্ষিণ অস্ট্রেলিয়ার আদিবাসী নেতারা জানিয়েছেন, উটের বিশাল দল শহর ও ভবন কে ধ্বংস করে দিচ্ছে। র্কতৃপক্ষ বলেছে, উটগুলো স্থানীয় বাসিন্দাদের হুমকি হয়ে দাড়িয়েছিল বলেই তাদের মেরে ফেলা হয়েছে। হেলিকপ্টার থেকে পেশাদার শ্যুটার দিয়ে এসব উট হত্যা করা হয়েছে।

দুই মাসেরও বেশি সময় ধরে চলা ভয়াবহ দাবানলে পুড়ে সেখানকার প্রায় ৫০ কোটি প্রাণী মারা গেছে।যুক্তরাষ্ট্র ও চীন বানিজ্যযুদ্ধে ঝান্ডা নামাতে চায়। এমনকি যে চীনকে আগে “কারেন্সি ম্যানুপুলেটর” বলে আনুষ্ঠানিকতা ভাবে আক্ষায়িত কিরেছিল যুক্তরাষ্ট্র। সেই যুক্তরাষ্ট্রই এখন বলছে ভিন্ন কথা। যুক্তরাষ্ট্র বলছে, তারাঁ চীনকে এখন আর কারেন্সি ম্যানুপুলেটর বলে মনে করে না। এই সিদ্ধান্ত থেকে তারা সরে এসেছে কারণ চীন মুদ্রার অবমূল্যায়ন করে বিদেশী ক্রেতাদের কাছে নিজেদের পণ্য কম দামী করার যে পন্থা নিয়েছিল সেই পথ থেকে সরে এসেছে । চলতি সপ্তাহেই এই বিষয়ে প্রথম দফায় চুক্তি করতে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র ও চীন। বিবিসি অনলাইনের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়। আর এর মাধ্যমে ২০১৮ সালে যে শুল্ক পাল্টা শুল্কের খেলা খেলেছিল দুই দেশ, তার থেকে সরে আসবে তারা। র্মাকিন র্অথমেন্ত্রী স্টিভেন মানচিন বলেন, চীন প্রতিযোগিতামূলক অবমূল্যায়ন থেকে সরে আসতে বাধ্য থাকবে বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। আরও স্বচ্ছতা এবং জবাবদিহি নিশ্চত করবে।

গত বছরের আগস্টে চীন মুদ্রা কারসাজি করছে বলে অভিযোগ তোলেন র্মাকিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি অভিযোগ করেন, নিজেদের পণ্য সস্তা করতেই চীন অন্যায্যভাবে মুদ্রার অবমূল্যায়ন করছে। গত বছরের ৫ আগষ্ট ১ ডলার সমান ৭ ইউয়ান হয়, যা ২০০৮ সালের পর ডলারের বিপরীতে ইউয়ানের সবচেয়ে বেশি অবমূল্যায়ন । এরপর এক টুইটে চীনের বিরুদ্ধে মুদ্রার অনায্য সুবিধা নেওয়ার অভিযোগ করেন ট্রাম্প। আনুষ্ঠনিক ভাবে চীনকে কারেন্সি ম্যানুপুলেটর বলে আক্ষ্যায়িত করেন। যুক্তরাষ্ট্রের দাবী, চীন সরকারের হস্তক্ষেপেই এই দর কমানো হয়েছে।জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদে পাকিস্তানের হয়ে জম্মু কাশ্মীরের নিরাপত্তার বিষয়টি চীন উত্থাপন করেছে বলে দাবি করেছে ভারত।

এনিয়ে পাকিস্তানের সমালোচনা করে দিল্লির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, নিরাপত্তা পরিষদের সদস্য চীনকে দিয়ে জাতিসংঘে যুম্মু কাশ্মীর ইস্যু তুলেছে পাকিস্তান।

বৃহস্পতিবার ভারতের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মূখপাএ রবীশ কুমার বলেছেন ,চীনকে দিয়ে ওই চেষ্টা চালিয়ে নিরাপত্তা পরিষদের অপব্যবহার করেছে ইসলামাবাদ। আর কাশ্মীর ইস্যু তুলতে গিয়ে যে অভিবক্তা হল, চীন ও তার থেকে শিক্ষা নিক । খবর আনন্দ বাজর পত্রিকার। প্রতিবেদনে বলা হয়, নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে তৃতীয়বারের মতো কাশ্মীর ইস্যু তোলার চেষ্টা করেছে চীন। কিন্তু আলোচনা শুরু হতে না হতেই নিরাপত্তা পরিষমদর অন্য ৪ সদস্য দেশ যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য ,ফ্রান্স ও রাসিয়ার পক্ষো থেকে বলা হয়, এটা একেবারেই ভারত ও পাকিস্তানের অভ্যন্তরীন বিষয়।এটা নিয়ে আলোচনা হতে পারে না নিরাপত্তা পরিষদের বৈঠকে।

একটি উত্তর ত্যাগ

আপনার মন্তব্য লিখুন দয়া করে!
এখানে আপনার নাম লিখুন দয়া করে